সাম্প্রতিক

শৈলী পাঠকসংঘের ষষ্ঠ প্রকাশনা বাজারে এসেছে

মাহি রহমান : গেল মার্চ মাসের শেষ সপ্তাহে বেরিয়েছে ‘শৈলী’ ষষ্ঠ সংখ্যা। নানান বিষয়ের নিবন্ধ-প্রবন্ধ, গল্প, কবিতা ও নাতিদীর্ঘ কলামধর্মী কিছু রচনার সমাহারে এ-সংখ্যা ‘শৈলী’ নিপুণ মুদ্রণসজ্জার পরিপাটিতা নিয়ে পাঠকের সঙ্গে মিতালি পাতানোর জন্য উপস্থিত হয়েছে ২০১৬ স্বাধীনতাস্মারক মাসের অন্তিম হপ্তায়।

২১ জন লেখকের রচনা নিয়ে সেমি-ট্যাবলয়েড ধাঁচের ক্রাউন-সাইজ্ পত্রিকাটি আটপৃষ্ঠা আবয়বিক ব্যাপ্তির ভিতরে অফসেট পেপারে ছাপা হয়েছে। এর মধ্যে একপৃষ্ঠায় আঁটানো গোটা-দশেক কবিতা ছাড়া বাদবাকি পৃষ্ঠাগুলো গদ্যনিবন্ধসংবলিত।

মুদ্রিত রচনাগুলোর মধ্যস্থিত কয়েকটির শিরোনাম শুনে নিলে পত্রিকার কন্টেন্ট সম্পর্কে একটা আন্দাজ করে নিতে পারবেন সম্ভাব্য পত্রিকাপাঠক ও ক্রেতাবৃন্দ। পত্রিকার শুরুতেই ছাপা হয়েছে ‘লেখালেখি বিষয়ক কিছু কথা’, যেখানে সাহিত্যরচনাপ্রাসঙ্গিক বহুব্যবহৃত কতিপয় ফর্ম বিষয়ে একেবারেই উপরিতলের ও অত্যন্ত প্রাথমিক স্তরের কিছু কথাবার্তা রয়েছে, যা ছাত্রসখা হিশেবে গ্রাহ্য হতে পারে। এছাড়া আরেকটি রচনার নাম ‘চিন্তার স্বাধীনতা : পোস্টকলোনিয়াল ও ওরিয়েন্টালিস্ট চিন্তার মোকাবেলা’; নাম শুনে যেমনটা স্বাভাবিক মনে হওয়া যে এখানে গেল-শতকের আশির দশক থেকে এদেশে এবং ভারতীয় বাংলা লিটলম্যাগগুলোতে এন্তার নন্যাকাডেমিক্ এতদপ্রাসঙ্গিক লেখাপত্রের ভিতর দিয়ে যে-একটা ধারাবাহিক পরিপক্বতা সাধিত হয়েছে বাংলা প্রাবন্ধিক চিন্তাচর্চায়, লেখক সেই বোঝাপড়ার জায়গাটাকে পেছনপট হিশেবে রেখে নিজের প্রেক্ষিত গড়ে নেবেন। যদিও রচনাটা পড়ে মনে হয় নাই লেখক বাংলায় সেই দীর্ঘ দুই/তিনদশকের উত্তর-উপনিবেশভাবিত প্রবন্ধচর্চা বা প্রাচ্যবাদী ক্রিটিকের বিশাল বনেদ সম্পর্কে খোঁজখবর রাখেন। মোকাবেলা তো দূর-কি বাত, কলোনিয়াল্/ওরিয়েন্টাল্ চিন্তার/আচরণের স্বরূপ ও প্রণালি নিবন্ধকার আদৌ ফোটাতে পারেন নাই। ইসলামের ইতিহাস শ্রেণিকামরায় পড়াতে যেয়ে বিশেষত কলেজ্-পর্যায়ে অনুসৃত কতিপয় টেক্সটবুকের পশ্চিমাঞ্চলিক রচয়িতা নিয়েই নিবন্ধকার দুশ্চিন্তা ও উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন, যদিও রচনাশিরোনাম পড়ে মনে হওয়া স্বাভাবিক যে এইটা তাত্ত্বিক ও বিদ্যায়তনিক প্রতর্ক-উৎসারী। শিরোনামেই ভার, ভিতরে নেই বিলকুল ধার।

‘শৈলী’ এই সংখ্যায় ছাপা আরেকটা রচনা ‘কবিতার সীমানা : শিল্প বিজ্ঞান ও সংকট’ যথেষ্ট সম্ভাবনাময় এবং সুন্দর; যদিও অপটু বাক্যগঠন, কোথাও কোথাও বক্তব্যবিন্যাসগত অস্পষ্টতা আর অবিরত বানানপ্রমাদ রচনাটা পাঠে ব্যাপক বিঘ্ন ঘটায়। বানানবিঘ্ন ধর্তব্য হলে গোটা কাগজটাই খারিজ করতে হয় অবশ্য। আমরা খারিজ নয়, তারিফই করব টুটাফাটা প্রচেষ্টারও। পত্রিকায় স্থান-পাওয়া ‘ইতিহাস পাঠ : প্রাসঙ্গিক কিছু কথা’ আরেকটা ভালো রচনা। তাছাড়া ছাপা হয়েছে ‘এলিয়েন ডি থ্রি’ শীর্ষক সাই-ফাই ছোটগল্প। অত্যন্ত উপভোগ্য ও তথ্যনিষ্ঠ রচনা আরেকটার নাম ‘ড্রাকুলা’, এই রচনাটা পাঠের জন্য হলেও ‘শৈলী’ শীর্ষক পত্রিকাটা পাঠক খুঁজে দেখতে পারেন।

‘শৈলী পাঠকসংঘ’ কর্তৃক প্রকাশিত পত্রিকাটি সম্পাদনা করেছেন মাহফুজুর রহমান। পত্রিকার শিল্পবিন্যাস করেছেন সাকিব উজ্জামান। দাম ধরা রয়েছে ১০ টাকা।

Comments

comments

মাহি রহমান

মাহি রহমান

রাশপ্রিন্ট কন্ট্রিবিউটর

লেখকের অন্যান্য পোস্ট

Tags: ,

লেখকের অন্যান্য পোস্ট :

সাম্প্রতিক পোষ্ট

লেখকসূচি