সাম্প্রতিক

একগুচ্ছ কবিতা । কুলদা রায়

যখন এসেছে মেঘ, তোকে বলি ,
বালিকার প্রকৃত গণিত ফুটে আছে গাছে
শিশির জমেছে পায়ে শ্যাওলায় ভরে আছে পথ
এই ক্ষণে এসেছি পালিয়ে
পুরনো স্বভাব মেনে মা তোমার—
নিরাপদ ছায়া থেকে ঝরে পড়ে নিভৃত খোলস
আমি এক গোপন সর্প দ্যাখো শ্রীমতি বিহনে কাঁদি
আয়ুজলে বুনে রাখি সমূহ বিনাশ

এসেছি পাতার কাছে হাত মেলে রাখি অন্ধকার
পায়ে পায়ে গ্রাম ভেঙে পড়ে
চোখে জমে জল
হাড়ের বেদনা জাগে দরোজার বিভুতি ছায়ায়
দূরে যেতে যেতে, তোকে বলি, নদী ও জলের কাছে
শুয়ে আছে ফুল চোর, অপরাহ্ণে নিহত বকুল

সুপারির গল্প শুনে রোজ রাতে শুতে চলে যাই
কতিপয় বালক আছে, তোকে বলি,
পথে যেতে যেতে তারা সব গোপাটের ছায়া পরিসর
তৃষ্ণা জমেছে দ্যাখো থেমে থেমে কষ্টে প্রবীণ
নাও বেয়ে যেজন গিয়েছে চলে
তার নামে গাই নাই বিলাসের গান

বরিশালপর্ব
পাতারহাট, মেহেন্দীগঞ্জ
২০০০

কুলদা রায়

কথা সাহিত্যিক। বাংলাদেশের বৃহত্তম ফরিদপুর জেলার গোপালগঞ্জ ১৯৬৫ সালে জন্ম। প্রকাশিত গ্রন্থ: (গল্প) কাঠপাতার ঘর, বৃষ্টি চিহ্নিত জল ও মার্কেজের পুতুল ও অন্যান্য গল্প। (প্রবন্ধ) রবীন্দ্রনাথের জমিদারগিরি ও অন্যান্য বিতর্ক, বঙ্গভঙ্গ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: রবীন্দ্র বিতর্ক।

লেখকের অন্যান্য পোস্ট

লেখকের সোশাল লিংকস:
Facebook

Tags: , , , , , , ,

লেখকের অন্যান্য পোস্ট :

সাম্প্রতিক পোষ্ট

লেখকসূচি